ফিলিং স্টেশনে চার বছরে ৪৮ কোটি টাকার গ্যাস চুরি

মুন্সিগঞ্জে ফিলিং স্টেশনের মিটার জালিয়াতির মাধ্যমে অভিনব কৌশলে গ্যাস চুরির অভিযোগে ৪ জনকে বিভিন্ন মেয়াদে কারাদণ্ড দিয়েছেন ভ্রাম্যমাণ আদালত। বৃহস্পতিবার রাতে র‌্যাব-১১ সদস্যরা গজারিয়ার বালুয়াকান্দি এলাকায় রংধনু সিএনজি অ্যান্ড ফিলিং স্টেশনে অভিযান চালিয়ে গ্যাস চুরির অভিযোগে তাদেরকে গ্রেফতার করে।

এ সময় ফিলিং ষ্টেশনটিকে ১ লাখ টাকা জরিমানা করা হয়। পরে সেখানকার গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্ন করা হয়। বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১০টা থেকে রাত ২টা পর্যন্ত এ অভিযান চলে।

আজ (১৩ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় র‌্যাব-১১ এর অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. জসিম উদ্দিন চৌধুরীর পাঠানো এক প্রেস বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সাজাপ্রাপ্তরা হলেন- প্রকৌশলী অঞ্জন কুমার (৩০), ব্যবস্থাপক মো. মানিক (৫৫), কর্মচারী মো. রাসেল (২৪) ও শহিদুল ইসলাম (২৬)।

র‌্যাব জানায়, রংধনু সিএনজি অ্যান্ড ফিলিং স্টেশন কর্তৃপক্ষ প্রতি মাসে কোটি টাকারও বেশি মূল্যের গ্যাস চুরি করে আসছিল। এভাবে গত ৪ বছর ধরে তারা প্রায় ৪৮ কোটি টাকার গ্যাস চুরি করে রাষ্ট্রীয় সম্পত্তির ব্যাপক ক্ষতি সাধন করেছে। গ্রেফতারের পর গজারিয়ার সহকারী কমিশনার (ভূমি) ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট এসএম ইমাম রাজী টুলুর নেতৃত্বে ভ্রাম্যমাণ আদালত বাংলাদেশ গ্যাস আইনে দোষী সাব্যস্ত করে অঞ্জন কুমারকে ২ মাস এবং মো. মানিক, মো. রাসেল ও শহিদুল ইসলাম প্রত্যেককে ১ মাসের বিনাশ্রম কারাদণ্ড দেন।

প্রাথমিক অনুসন্ধান ও জিজ্ঞাসাবাদে গ্রেফতারকৃতরা জানিয়েছে, রংধনু সিএনজি অ্যান্ড ফিলিং স্টেশনের প্রকৌশলী অঞ্জন কুমার এবং মালিক জাহিদ হাসান ও মুকুল গংরা পরস্পর যোগসাজসে তিতাস গ্যাস কোম্পানির দেয়া মিটারের আগে সুক্ষ ছিদ্র করে লোহার সরু তার ঢুকিয়ে মিটারের পাখার গতিকে শ্লথের মাধ্যমে অভিনব কৌশলে গ্যাস চুরি করে আসছিল। এভাবে প্রায় ৪ বছর ধরে তারা বিআরটিসি ও অন্যান্য একাধিক পরিবহনের গাড়িতে মাসিক চুক্তিতে লাখ লাখ টাকার গ্যাস বিক্রি করেছে। এছাড়া তারা বিভিন্ন কারখানার কাছে বেআইনিভাবে সিলিন্ডারে গ্যাস ভর্তি করে বিক্রি করতো।

ফিলিং স্টেশনটির কয়েক মাসের বিল পর্যালোচনা করে দেখা যায়, তিতাস গ্যাস কোম্পানিকে তারা মাসে গড়ে বিল দিয়েছে মাত্র ৭০ লাখ টাকা। কিন্তু গত নভেম্বর মাসে শুধু সিপি বাংলা নামে একটি কোম্পানির কাছে সিলিন্ডার ভর্তি গ্যাস বিক্রি করেছে ৭৯ লাখ টাকার। এছাড়াও ২৪ ঘণ্টা তারা বিভিন্ন পরিবহনে গ্যাস বিক্রি করেছে।

Related posts