মেয়র হলে ২৪ ঘন্টা ৭ দিন কাজ করবেন শহীদ পূত্র তাপস

মেয়র নির্বাচিত হলে সপ্তাহে ৭ দিন ও দিনে ২৪ ঘণ্টা কাজ করার প্রতিশ্রুতি দিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী শেখ ফজলে নূর তাপস। তিনি বলেছেন, ‘মেয়র নির্বাচিত হলে বছরে ৩৬৫ দিন, সপ্তাহে ৭ দিন, ২৪ ঘণ্টা আপনাদের জন্য কাজ করব। নাগরিকদের সেবা প্রদান করতে নগর ভবন ২৪ ঘণ্টা খোলা থাকবে। এই নগরীকে সুন্দর ও পরিষ্কার-পরিচ্ছন্ন নগরী হিসেবে গড়ে তোলা হবে।’

পঞ্চম দিনের প্রচার শুরু করার সময় রাজধানীর কামরাঙ্গীরচরের ঝাউচর এলাকায় এক পথসভায় শেখ ফজলে নূর এসব কথা বলেন। তিনি বলেন, ‘ঢাকা আমাদের প্রাণের শহর। আমাদের ঢাকা, আমরাই গড়ব। উন্নত ঢাকা গড়তে নৌকার পক্ষে সবাই ভোট দিয়ে নৌকাকে জয়যুক্ত করতে হবে। এর মধ্য দিয়ে নবযাত্রা সূচিত হবে।’

এ ছাড়া নির্বাচনী প্রচারে আচরণবিধি লঙ্ঘনের অভিযোগ নাকচ করে দিয়েছেন শেখ ফজলে নূর। তিনি বলেন, ‘আমরা কোনো ধরনের আচরণবিধি লঙ্ঘন করছি না। আচরণবিধি মেনেই নির্বাচনী প্রচারণা চালাচ্ছি। দলীয় নেতা-কর্মীরাও বিধি মেনে সুশৃঙ্খলভাবে প্রতিদিন প্রচার চালাচ্ছে।’

কামরাঙ্গীরচর চরের মানুষের উদ্দেশে তিনি বলেন, ঢাকার অন্যান্য এলাকার তুলনায় কামরাঙ্গীরচর অবহেলিত। মেয়র নির্বাচিত হলে এই এলাকার জন্য আলাদা পরিকল্পনা নেওয়া হবে। এখানকার রাস্তাঘাট, অলিগলি—সবকিছু উন্নত করে গড়ে তোলা হবে।

পথসভায় উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা পরিষদের সদস্য মুকুল বোস, আবুল হাসনাত, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, সাংগঠনিক সম্পাদক বি এম মোজাম্মেল হক, মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক শাহে আলম মুরাদ, যুব মহিলা লীগের সাধারণ সম্পাদক অপু উকিল প্রমুখ। সকাল থেকেই নেতা-কর্মীরা ঝাউচর এলাকায় ভিড় করেন। নৌকার পক্ষে স্লোগান দিয়ে ফুল ছিটিয়ে তাপসকে অভ্যর্থনা জানান তাঁরা।মঙ্গলবার দুপুর ১২টায় প্রচার শুরু করেন শেখ ফজলে নূর।
রাস্তায় হেঁটে হেঁটে প্রচারপত্র বিলি করেন।
বেলা সাড়ে তিনটা পর্যন্ত ৫৫ নম্বর ওয়ার্ডের বিভিন্ন এলাকায় তিনটি পথসভায় বক্তব্য দেন তিনি।
এরপর সাড়ে তিনটার দিকে দুপুরের খাবারের বিরতি দেওয়া হয়। বিকেলে ও সন্ধ্যায় ৫৬ ও ৫৭ নম্বর ওয়ার্ডে জনসংযোগ চালাবেন তিনি।

Related posts